হঠাৎ কেন আইভীকে সেলিম ওসমানের ফোন ?

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

‘আমি তোমার বড় ভাই না? আমাদের মধ্যে কোন ঝগড়া আছে, না বিবাদ আছে? সমস্যা এক টেবিলে বসলে সব সমাধান রয়েছে। আমরা তো জনগণের উপর কোন কিছু চাপিয়ে দেই না, গভমেন্ট যে সিদ্ধান্ত দেয় সেগুলোই আমাদের প্রয়োগ করতে হয়। তাদের খুব সখ আমি আর তুমি একসাথে বসবো, এটাই তারা চায়।’

এভা‌বে কথা বল‌ছি‌লেন এনসিসি মেয়র সে‌লিনা হায়াৎ আইভীর সা‌থে নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য একেএম সেলিম ওসমান।

আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠনের ‌নেতা‌দের অনু‌রো‌ধে সে‌লিম ওসমান ফোন ক‌রে‌ছি‌লেন মেয়র‌কে।

ওয়াসা নিয়ে ৫ দফার একটি স্মারকলিপি নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়রকে দেয়ার প্রায় ২০দিন পর মঙ্গলবার(২০ অক্টোবর) সেলিম ওসমানকে দি‌তে যায় আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠন।

স্মারকলিপির অনুলিপি সেলিম ওসমানকে দেয়ার পর আলোচনায় ব‌সে। এক পর্যায়ে নেতা‌দের অনুরোধে মেয়র আইভীর সাথে ফোনালাপে যুক্ত হন সাংসদ সে‌লিম ওসমান।

আলোচনা শে‌ষে সেলিম ওসমান বলেন, আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠন ওয়াসা সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মেয়রের কাছে স্মারকলিপি দিয়েছে। তারই অনুলিপি আমার কাছে দিলেন। আমি তাৎক্ষণিকভাবে মেয়র মহোদয়ের সাথে টেলিফোনে আলোচনা করি। এসময় আমি মেয়রকে টেবিলে বসে কতগুলি সমস্যার সমাধান করা যাবে এ বিষয়ে প্রস্তাব জানাই। মেয়র প্রস্তাবকে স্বাচ্ছন্দ্যে গ্রহণ করে এবং সকলের সময় উপযোগী সময়ে দ্রুত বসার কথা দেন।

নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স ভবনের ৮ম তলায় সেলিম ওসমানের সাথে ঘন্টাব্যাপী আলাপ-আলোচনা করে আমরা নারায়ণগঞ্জ বাসী সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা। এসময় ওয়াসা ছাড়াও, নারায়ণগঞ্জে ডাবল রেল লাইন হলে ব্যাপক যানজট হবে আশঙ্কা করে সেলিম ওসমানের নিকট পরামর্শও চায় সংগঠনটির নেতৃবৃন্দরা।

এসময় উপস্থিত ছিলেন- নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অব কর্মাসের সভাপতি খালেদ হায়দার খান কাজল, আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠনের সভাপতি নূরু উদ্দিন আহম্মেদ, সহ সভাপতি কাদির দেওয়ান, সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দীন মন্টু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহমুদ হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক রমজানউল রশিদ, সদস্য রুহুল আমিন, সহসাংগঠনিক সম্পাদক মাকিব মোস্তাকিম শিপলু, নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এ্যাড.মোহসীন মিয়াসহ আরও অনেকে।

উল্লেখ্য, সিটি কর্পোরেশনের জরুরী বিজ্ঞপ্তি দ্বারা আবাসিক নলকূপ বৈধকরণের অজুহাতে নলকূপ ব্যবহারকারীগণকে ২ হাজার টাকা দিয়ে ফরম ক্রয় করতে বাধ্য না করা এবং সিদ্ধান্ত বাতিল, গভীর নলকূপ ব্যবহারীদের উপর করারোপ ধার্য্য থেকে অব্যাহতি প্রদান, চাহিদামতো সুপেয় পানির সরবরাহ, হয়রানীমূলক বিল প্রদান না করা, ৮-১০ টি পৃথক স্থানে দুই বেলা সুপেয় পানির ব্যবস্থার দাবি জানিয়ে মেয়রের নিকট গত ৩০ সেপ্টেম্বর স্মারকলিপি দেয় আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠন।

সূত্রঃলাইভ নারায়ণগঞ্জ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin