স্বাস্থ্যবিধি মানায় উদাসীন নারায়ণগঞ্জবাসী

শেয়ার করুণ

দেশে করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপের দিকে যাচ্ছে। প্রতিদিন দেশে গড়ে দুশোর্ধ মানুষ মারা যাচ্ছে। আর প্রতিনিয়তই সনাক্তের হার নতুন রেকর্ড গড়ছে। কোরবানির ঈদের পর থেকে দেশে চলছে কঠোর লকডাউন। অর্থনীতির কথা চিন্তা করে সরকার কঠোর লকডাউন শিথিল করে খুলে দিচ্ছে গার্মেন্টস ও শিল্প-কলকারখানা,মানুষকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার উপর গুরুত্ব আরোপ করে। সরকারের এই নির্দেশনা মানার ক্ষেত্রে নারায়ণগঞ্জবাসীকে খুবই উদাসীন দেখা যাচ্ছে।

জেলার বিভিন্ন স্থান ঘুরে দেখা যায় মানুষের মাঝে উৎসবের আমেজ। গতকাল সন্ধ্যায় নগরীর প্রানকেন্দ্র চষাড়ায় ছিল মানুষের উপচেপড়া ভীড়। বের হওয়া মানুষের অধিকাংশের মুখেই ছিলো না মাস্ক। কেউই মানছিল না সামাজিক দুরত্ব। ভীড় ঠেলে নগরবাসীকে যার যার প্রয়োজনীয় সামগ্রী কিনতে দেখা গেছে।

নগরীর অলিগলিতে ঘুরে দেখা যায় প্রায় অধিকাংশ স্থানে নেই স্বাস্থ্য সুরক্ষার কোন ব্যাবস্থা। অন্য যে কোন সময়ের মতই স্বাভাবিকভাবে চলছে সবকিছু।

শনিবার সারাদিন নগরীর কাচা বাজারগুলোতেও ছিল প্রচন্ড ভীড়। নগরীর ৫ নং ঘাটের মাছের বাজার, কালির বাজার, দ্বিগুবাবুর বাজার সহ মহল্লার মাজারগুলোতেও ছিল উপচেপড়া ভীড়। কোথাও স্বাস্থ্যবিধির নুন্যতম চেহারা পরিলক্ষিত হয় নি। ক্রেতা সাধারণকে স্বাস্থবিধি মানার ক্ষেত্রে উৎসাহিত করতে বাজার কর্তৃপক্ষেরও কোন তৎপরতা চোখে পড়েনি।

জেলার মানুষের স্বাস্থ্যবিধি মানার ক্ষেত্রে এই উদাসীনতাকে খুবই আতংকের সাথেই দেখছেন স্বাস্থ্য সংশ্লিষ্টরা। তাদের আশংকা এভাবে চলতে থাকলে করোনা পরিস্থিতি আরো ভয়াবহরূপে আঘাত হানতে পারে জেলায়। তাই সবাইকে এই ব্যাপারে সচেতন হবার আহবান তাদের।

নিউজটি শেয়ার করুণ