সবচেয়ে বেশি ভোট কুতুবপুরে,সবচেয়ে কম আলীরটেকে

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

নারায়ণগঞ্জের ৩ উপজেলার ১৬ ইউপিতে নির্বাচন হতে যাচ্ছে আগামী ১১ নভেম্বর। এই ১৬ ইউপির মধ্যে সদর উপজেলার বক্তাবলী, কুতুবপুর ও রূপগঞ্জ উপজেলার গোলাকান্দাইল, ভুলতা ও মুড়াপাড়া ইউপিতে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থীরা। এই ৫ ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে কোনো নির্বাচন না হলেও সাধারণ সদস্য পদে ও সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

এদিকে জেলা নির্বাচন অফিসারের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, সদর, বন্দর, রূপগঞ্জ এই ৩ উপজেলার ১৬ ইউপিতে মোট ভোটারের সংখ্যা ৬ লাখ ৭৮ হাজার ৬৮১। যার মধ্যে পুরুষ ভোটারের সংখ্যা ৩ লাখ ৪৫ হাজার ৯৪৭ ও মহিলা ভোটার ৩ লাখ ৩২ হাজার ৭৩৪ জন। যার মধ্যে মোট ভোট কেন্দ্র ২৭৬ ও ভোট কক্ষ ১৮৪১।

সদর উপজেলা
নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ৬ ইউনিয়নে মোট ভোটার ৩ লাখ ৮১ হাজার ৯৫৩ জন। যার মধ্যে কুতুবপুর ইউনিয়নে ভোটার সংখ্যা ১ লাখ ৬০ হাজার ১২৩ জন। যার মধ্যে পুরুষ ভোটার ৮১ হাজার ৪০৩ ও মহিলা ভোটার ৭৮ হাজার ৭২০। ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৫৮ ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৪০৯। গোগনগর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২০ হাজার ৯ জন। যার মধ্যে পুরুষ ভোটার ১০ হাজার ১৪২ জন ও মহিলা ভোটার ৯ হাজার ৮৬৭ জন। ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ১০ ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৫৪। এনায়েতনগর ইউনিয়নে মোট ভোটার ৮১ হাজার ২৯৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৪১ হাজার ৬৬৪ ও মহিলা ভোটার ৩৯ হাজার ৬৩৪ জন। ভোট কেন্দ্র ৩১টি ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ২১২টি। আলীরটেক ইউনিয়নে ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৯টি ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৩৯। মোট ভোটার ১৩ হাজার ৫০৪ জন। পুরুষ ভোটারের সংখ্যা ৭ হাজার ৪০ ও মহিলা ভোটারের সংখ্যা ৬ হাজার ৪৬৪ জন। বক্তাবলী ইউনিয়নে ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ১১টি ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৮৩টি। মোট ভোটার ৩০ হাজার ৭৩৭ জন। পুরুষ ভোটার ১৬ হাজার ৫২ ও মহিলা ভোটার ১৪ হাজার ৬৮৫ জন। কাশীপুর ইউনিয়নে ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ২৮ ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ২০২ টি। মোট ভোটার ৭৬ হাজার ২৮৬ জন। যার মধ্যে পুরুষ ভোটার ৩৮ হাজার ৬৮২ ও মহিলা ভোটার ৩৭ হাজার ৬০৪ জন।

বন্দর ইউনিয়ন
বন্দর ইউনিয়নে মোট ভোটারের সংখ্যা ১ লাখ ২২ হাজার ৩০৩ জন। যার মধ্যে বন্দরের মদনপুর ইউনিয়নে মোট ভোটার ১৬ হাজার ৫১২ জন। পুরুষ ভোটার ৮ হাজার ৫০৬ ও মহিলা ভোটার ৮ হাজার ৬ জন। ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৯টি ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৪৬টি। বন্দর ইউনিয়নে ভোটারের সংখ্যা ২৫ হাজার ৫৬ জন। পুরুষ ভোটার ১২ হাজার ৬৬৯ ও মহিলা ভোটার ১২ হাজার ৩৮৭ জন। ভোট কেন্দ্র ১১টি ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৬২টি। কলাগাছিয়া ইউনিয়নে মোট ভোটার ৩৭ হাজার ৯৯৭। পুরুষ ভোটার ১৯ হাজার ৩৩৮ ও মহিলা ভোটার ১৮ হাজার ৬৫৯ জন। ভোট কেন্দ্র ১৬টি ও ভোট কক্ষের সংখ্যা ৯৫টি। মুছাপুর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২১ হাজার ৭০১। পুরুষ ভোটার ১১ হাজার ১৬৮ ও মহিলা ভোটার ১০ হাজার ৫৩৩ জন। ভোট কেন্দ্র ৯টি ও ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৫৩টি। ধামগড় ইউনিয়নে মোট ভোটার ২১ হাজার ৩৭টি। পুরুষ ভোটার ১০ হাজার ৮০৮ ও মহিলা ভোটার ১০ হাজার ২২৯। ভোট কেন্দ্র ৯টি ও ভোট কক্ষ ৫৩টি।

রূপগঞ্জ
রূপগঞ্জে মোট ভোটার ১ লাখ ৭৪ হাজার ৪২১ জন। যার মধ্যে রুপগঞ্জ মুড়াপাড়া ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৫ হাজার ৪৬৯ জন। পুরুষ ভোটার ১২ হাজার ৭৬১ ও মহিলা ভোটার ১২ হাজার ৭০৮ জন। ভোট কেন্দ্র ১০টি ও ভোট কক্ষ ৭৯টি। কায়েতপাড়ায় মোট ভোটার ৫৩ হাজার ১৮০। পুরুষ ভোটার ২৬ হাজার ৭১৭ ও মহিলা ভোটার ২৬ হাজার ৪৬৩। ভোট কেন্দ্র ২৫ ও ভোট কক্ষ ১৬৮ টি। ভুলতা ইউনিয়নে মোট ভোটার ৩১ হাজার ৯৬৪। পুরুষ ভোটারের সংখ্যা ১৬ হাজার ২৯৫ ও মহিলা ভোটারের সংখ্যা ১৫ হাজার ৬৬৯ জন। ভোট কেন্দ্র ১৩টি ও ভোট কক্ষ ৯৩। ভোলাব ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৭ হাজার ২৬৫ জন। পুরুষ ভোটার ১৩ হাজার ৭৪০ ও মহিলা ভোটার ১৩ হাজার ৫২৫ জন। ভোট কেন্দ্র ১১টি ও ভোট কক্ষ ৮২টি। গোলাকাইন্দাল ইউনিয়নে মোট ভোটার ৩৬ হাজার ৫৪৩ জন। পুরুষ ভোটার ১৮ হাজার ৯৬২ ও মহিলা ভোটার ১৭ হাজার ৫৮১। ভোট কেন্দ্র ১৬টি ও ভোট কক্ষ ১১টি।

সূত্রঃ প্রেস নারায়ণগঞ্জ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin