সবই গুজব- ভোটেই ভাগ্য নির্ধারন হবে মেম্বার প্রার্থীদের

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

বৃহস্পতিবার ১১ তারিখ এনায়েতনগর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে ঘিরে গুজবের ডালপালা মেলে বসেছে এলাকার-পাড়া-মহল্লার অলিগলিতে। বিশেষ করে মেম্বার প্রার্থীদের ইঙ্গিত করে এইসকল গুজব রটানোর কাজটি সুনিপুণভাবে প্রচার করছে একশ্রেণির কুচক্রীমহল নামধারীরা। এতে করে ভোটাররাও বিভ্রান্ত হচ্ছে সাথে খেইও হারাচ্ছে।

কেউ বলছে উপরের নির্দেশে ‘অমুক’ ভাইকে সমর্থন দিয়েছে আওয়ামীলীগ, আবার কেউ বলছে এমপি শামীম ওসমানের ইশারায় সে ‘যোগ্য’ মনোনীত প্রার্থী। কোনো কোনো প্রার্থীর বিরুদ্ধে মিথ্যা-গুজব রটাচ্ছে- দলীয় হাইকমান্ডের নির্দেশনা মানছে না, দল থেকে পানিশমেন্টের ব্যবস্থা করা হউক। অথচ মেম্বার ও সংরক্ষিত মহিলা প্রার্থীদের নির্বাচন যেনো সঠিক ও একটি সর্বমহলে গ্রহণযোগ্য নির্বাচন হয় সেই আশাবাদ ব্যক্ত করেন সব সময় মাননীয় এমপি শামীম ওসমান ও দলীয় হাইকমান্ড।
নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপি শামীম ওসমান আরো আশঙ্কা করে বলেন নির্বাচনে কোন লাশের রাজনীতি করে নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে পারে।

তিনি বলেছেন, ‘তৃতীয় পক্ষ যারা হতে পারে খন্দকার মোশতাকের বংশধর, উগ্র মৌলবাদী গোষ্ঠী কিংবা তাদের লোকজন নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে পারে। যেহেতু নির্বাচনী একটি বড় এলাকা আমার। সেখানে একটি ক্ষেত্র প্রস্তুত করে লাশের রাজনীতি করে জাতীয় ইস্যু বানাবে। আর এ কাজটি করছেন তৃতীয় পক্ষ যারা নির্বাচনে সম্পৃক্ত না। আমাদের প্রধানমন্ত্রী জাতির কন্যার একটাই স্লোগান যার যার ভোট তিনি দিবেন। এখানে কোন অনিয়ম সহ্য করা হবে না।

তিনি আরো বলেন, কিছু কিছু বক্তব্য আমাদের ভাবমূর্তি বিনষ্ট করছে। এসকল হাইব্রিড বক্তব্যের কারণে আমরা এমন কোন কর্মকান্ড হতে দিব না যেখানে আমার দল ও জাতির জনকের কন্যার ভাবমূর্তি নষ্ট হয়। আমরা চাই শতভাগ ফ্রি অ্যান্ড ফেয়ার নির্বাচন। আমাদের প্রশাসন যথেষ্ট সজাগ। তারা এ ধরনের কিছু করতে দিবে না।

আজকে ৯ নভেম্বর মঙ্গলবার বিকেলে নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে গণমাধ্যমকর্মীদের ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

সূত্রঃ মুক্ত গণমাধ্যাম

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin