বন্দরে দুবাই ফেরত তরুনীকে ধর্ষণ

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

বিয়ে করার প্রলোভন দেখিয়ে দুবাই প্রবাসী (২৫) এক যুবতীকে ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর পূর্বক ধর্ষনের অভিযোগে প্রেমিক শাহীন (২৭) নামে এক ধর্ষককে গ্রেপ্তার করেছে বন্দর থানা পুলিশ। সোমবার (২৪ জানুয়ারি) দুপুরে বন্দর থানার কলাবাগ ঝাউতলা এলাকা থেকে ওই ধর্ষককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

তাকে গ্রেফতার করা হয়।গ্রেপ্তারকৃত শাহীন বন্দর কলাবাগ ঝাউতলা এলাকার জজ মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় ধর্ষিতা নিজেই বাদী হয়ে বন্দর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করে। যার মামলা নং- ১৪(১)২২।

জানা গেছে ,বন্দর কলাবাগ ঝাউতলা এলাকার জজমিয়ার ছেলে শাহিনের সাথে সোনাকান্দা এলাকার দুবাই প্রবাসী ২৫ বছরের এক যুবতীর সাথে ২০১৯সাল থেকে প্রেমের সম্পর্ক চলছিল। প্রেমিক শাহীন ওই তরুনীকে বিবাহের প্রলোভন দেখাইয়া বিভিন্ন সময় বিভিন্ন স্থানে নিয়ে দৈহিক সম্পর্কে মিলিত হত। আর্থিক অনটনের কারনে ওই তরুনী দুবাই চলে যায়।

পরে বিবাদী ওই তরুনীর সাথে যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়। পরে গত ২০২১সালের ২৪ডিসেম্বর ওই তরুনী দেশে আসিলে তার প্রেমিক শাহিন অন্য একটি মেয়েকে বিবাহ করেছে শুনতে পায়। পরে বিবাদী শাহিন মিয়াকে ওই তরুনী ৮জানুয়ারী দুপুরে বন্দর বাজারস্থ ইসলামী ব্যাংকের সামনে দেখতে পেয়ে কেন তার সাথে প্রতারনা করল প্রশ্ন করলে তাকে বেধরক কিলঘুসি মেরে আহত করে।

পরে অজ্ঞান করে ওই তরুনীকে বিবাদী শাহীন মিয়া উত্তর কলাবাগ খালপাড় ভাঙ্গাব্রিজের নিচে একটি কারখানায় নিয়া জোরপূর্বক ধর্ষন করে ও ওই তরুনীর সাথে থাকা মোবাইল নিয়ে পালিয়ে যায়।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin