ফতুল্লার পাগলায় প্রবাসীর স্ত্রীকে উত্যক্ত, যুবক গ্রেপ্তার

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

ফতুল্লায় পাগলায় প্রবাসীর স্ত্রীকে উত্যক্ত করার অভিযোগে বিল্লাল হোসেন (২৬) নামক এক যুবককে গ্রেফতার করেছে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ। 

মঙ্গলবার রাতে তাকে শহরের চাষাড়া এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়।এর আগে ভুক্তভোগী ওই নারী ফতুল্লা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। গ্রেফতারকৃত বিল্লাল হোসেন জেলার রুপগঞ্জ থানার আদুরিয়ার মৃত আবুল কাশেম মিয়ার পুত্র। সে চাষাড়া ফুটপাথের কাপড় বিক্রেতা।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ফতুল্লা মডেল থানার উপপরিদর্শক হারেস সিকদার জানায়,মামলার বাদী একজন প্রবাসীর স্ত্রী। দেলপাড়া খালপাড়াস্থ তার একটি বিউটি পার্লার ও মেয়েদের থ্রী-পিস সহ কাপড় বিক্রির দোকান রয়েছে।

২০২১ সালের মে মাসের দিকে ভুক্তভোগী নারী চাষাড়া ফুটপাথস্থ দোকানে থ্রী-পিস কিনতে গেলে গ্রেফতারকৃত বিল্লাল হোসেনের সাথে পরিচয় হয়। পরিচয়ের সূ্ত্র ধরে সে প্রায় সময় ঐ দোকান থেকে থ্রী-পিস সংগ্রহ করতো। বিল্লাল এক সময় তার নিকট থেকে মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে। পরে বিল্লাল মোবাইল ফোনে বাদী কে কু- প্রস্তাব দিলে বাদী সম্পূর্ণরুপে যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়।

এতে বিল্লাল তার পূর্ব পরিচিত দেলপাড়া এলাকার শরীফ মিয়ার পুত্র অনিকের মাধ্যমে বাদীর বাসার ঠিকানা সংগ্রহ করে।এতে করে সে  প্রায় সময় বাদীর বাড়ীর সামনে এসে তাকে নানা ভাবে উত্যক্ত করতে থাকে।

এরই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার বেলা সাড়ে বারোটার দিকে গ্রেফতারকৃত বিল্লাল হোসেন বাদীর পার্লারের সামনের রাস্তায় বাদীকে তার সাথে যাওয়ার প্রস্তাব দিলে বাদী অপারগতা প্রকাশ করলে গ্রেফতারকৃত বিল্লাল বাদীর ওড়না ধরিয়া টানা-হেচড়া করে।এতে বাদী ডাক-চিৎকার করলে গ্রেফতারকৃত বিল্লাল ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।

এ ঘটনায় বাদী মামলা দায়ের করলে মঙ্গলবার রাত দশটার দিকে চাষাড়া থেকে অভিযুক্ত বিল্লাল হোসেন কে গ্রেফতার করে পুলিশ।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin