নেগেটিভ চিন্তা ভাবনা থেকে নিজেকে দূরে রাখবেন কিভাবে?

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

জীবনে চলার পথে আমাদের সঙ্গে এমন অনেক ঘটনা ঘটে যার ফলে মনের মধ্যে সর্বক্ষন এক অজানা নেগেটিভ চিন্তা বাসা বাঁধতে শুরু করে, অনেক চেষ্টা করেও আমরা তার থেকে নিজেদের মনকে সরাতে পারিনা। কিছু সহজ উপায় রইলো আপনাদের জন্য যার দ্বারা আপনারা নিজেদের মনের যাবতীয় নেগেটিভ চিন্তার থেকে মুক্তি পাবেন।

পজিটিভ থাকুন

আপনার সঙ্গে যারা রয়েছেন তারা যতই আপনাকে নেগেটিভ কথা বলুক আপনি নিজেকে পজিটিভ রাখার চেষ্টা করুন সবসময়। নেগেটিভ মানুষদের এড়িয়ে চলা সম্ভব নয়। বিশেষ করে বাড়িতে বা অফিসে যারা রয়েছেন সবসময় চোখের সামনে, আবার তাদেরকে কোনও ভাবে সন্তুষ্ট করাও সম্ভব নয়। কারণ আপনার কোনও পরামর্শ তারা মানবেননা বরং তিনি যা বলছেন শুনে যান। তাকে বলুন তিনি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবেন।

মেডিটেশন

নিয়মিত মিনিটকুড়িপ্রাণায়ম করলে ব্রেনের কিছু পরিবর্তন হতে শুরু করে, যে কারণে ‘ফিল গুড‘ হরমনের ক্ষরণ বেড়ে যায়, যার প্রভাবে মানসিক অবসাদের প্রকোপ কমতে থাকে খুব সহজেই। সেই সঙ্গে মনোযোগ ক্ষমতার যেমন বিকাশ ঘটে, তেমনই স্মৃতিশক্তির উন্নতি ঘটে দারুন ভাবে এবং দূর হয় শরীরের ক্লান্তিও। আর দেরি না করে আজ থেকে মেডিটেশন করা শুরু করে ফেলুন

পছন্দের সিনেমা দেখতে শুরু করুন

বর্তমানে যা পরিস্থিতি চাইলেও বাড়ির বাইরে বেরোনো যাচ্ছেনা এবং তা উচিতও নয়, কিন্তু নেগেটিভ চিন্তা দূর করা জন্য সিনেমা দেখা কিন্তু অন্যতম একটা দারুন উপায়। সমাধান কিন্তু রয়েছে আপনার হাতের মুঠোয়, হাতের মুঠোফোনের মধ্যেই ঝটপট নেটফ্লিক্স নয়তো অ্যামাজনে নজর বুলিয়ে দেখে নিন কোন কোন সিনেমা এখনও দেখা হয়নি। সেগুলি এক এক করে দেখতে শুরু করে দিন দেখবেন মন খারাপ করার আর সময় খুঁজে পাবেননা। মাঝে মাঝে ইচ্ছা হলে এক কাপ চা বা কফিতে চুমুকদিয়ে দিন, তাতে সময়টা আরও ভাল কাটবে আপনার। ফলে মন-মেজাজও চাঙ্গা হয়ে উঠবে।

রান্নার করে কামাল করে ফেলুন

জানেন কি রান্না করলে স্ট্রেস বা নেগেটিভ চিন্তা ম্যাজিকের মতো দূর হতে পারে? ইউটিউবে পছন্দসই কোনো একটা রান্নার চ্যানেলে নিজের পছন্দ মতো কয়েকটা রেসিপি দেখে তা তৈরি করে ফেলুন। তাতে পেট পুজোটা যেমন মন্দ হবে না, তেমনই সময়টাও বেশ কেটে যাবে। ফলে মন খারাপ হওয়ার কোনও সুযোগই মিলবে না। যখন আপনার রান্না বাড়ির সকলে খেয়ে প্রশংসা করবে দেখবেন এক অপূর্ব মানসিক শান্তি ভোরে উঠবে মনের মধ্যে।

জমিয়ে আড্ডা মারলে সব চিন্তার মুক্তি

কা একা জানলার ধারে বসে বৃষ্টি না দেখে বাড়িতে যারা রয়েছে তাদের ডেকে একটু একসঙ্গে বসে আড্ডা দিন, সবাই মিলে বসে গরম-গরম পিঁয়াজি-সিঙ্গারা সহযোগে চুটিয়ে আড্ডা মারুন। অবশ্য বর্তমানে নিউক্লিয়ার ফ্যামিলির কারণে বাড়িতে অনেকেরই বেশি লোকজন থাকেনা সেক্ষেত্রে ফোন করে বন্ধুদের সঙ্গে জমিয়ে আড্ডা শুরু করুন। দেখবেন, মনের মেঘ কেটে যেতে সময় লাগবে না, আপনার মনের যাবতীয় নেগেটিভ চিন্তা একেবারে দূরে পালাবে নিমেষের মধ্যে।

মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন

উপরের সব উপায়গুলো পালন করেও যদি দেখেন ঠিক কাজ হচ্ছেনা, নেগেটিভিটি একেবারে সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে তাহলে কোনো রকম দ্বিধা না করে মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন, অনেক সময় কেবল একজন মনোবিদ আপনাকে সঠিক রাস্তাটি দেখতে সক্ষম হতে পারেন এবং আপনিও ধীরে ধীরে জীবনের মূল্য বুজতে পারবেন। নেগেটিভ চিন্তাকে দূরে রেখে নতুন উদ্যোগে জীবন শুরু করতে পারবেন।

তথ্যঃ ইন্টারনেট

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin