নারায়ণগঞ্জে কাজ ও সেবা প্রদান করা গর্বের বিষয়: এসপি জায়েদুল

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার জায়েদুল আলম বলেছেন, ‘নারায়ণগঞ্জ জেলায় ৬৪ জেলার মানুষ বসবাস করে। তাই এখানে কাজ ও সেবা প্রদান করা গর্বের বিষয়। এখানে কাজের ক্ষেত্র বেশি, জনগণের কাছে যাওয়ার সুযোগ আছে এবং আছে কাজ করার অনেক সুযোগ। আমাদের পুলিশের যে ভাবমূর্তি আছে তা উজ্জ্বল করার সুযোগও নারায়ণগঞ্জে বেশি।’

শনিবার (৩১ অক্টোবর) সকালে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ লাইনস এ কমিউনিটি পুলিশিং ডে উপলক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, দেশের অন্যান্য জায়গায় কাজ করার ক্ষেত্রে আমাকে বারবার পরিচয় দিতে হয়। কিন্তু যখন নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার কথাটা উল্লেখ করি তখন আমি যেখানে ইচ্ছা যেতে পারি, কাজ করার সুযোগ পাই। আমরা সবাই জানি নারায়ণগঞ্জে কাজ করা অত্যন্ত একটা সম্মানের বিষয়। আমি পুলিশ ভাইদের বলবো, আসুন আমরা সবাই এই সম্মান বজায় রাখি। আমরা যাতে বলতে পারি, আমরা নারায়ণগঞ্জে কাজ করেছি, অনেক সম্মান পেয়েছি এবং ভালো সেবা দিতে পেরেছি। আজকে পুলিশ বাহিনীর বিরুদ্ধে পত্রপত্রিকায় নিউজ আসে না। কারণ নিশ্চিত ভালো কাজ করেছি বলেই তারা আসে না। আমাদের এইখানে যারা নতুন আসে তারা পুরনোদের চেয়ে ভালো করে। কারণ আমাদের এখানে পরিবর্তন আছে এবং আমরা কাজের মাধ্যমে ও ব্যবহারের মাধ্যমে পরিবর্তন চাই।

পুলিশ সুপার বলেন, জাতির পিতার স্বপ্নে আমাদের এ দেশ গড়ে তুলতে আমরা এককভাবে পারবো না। আমরা যে অবস্থানে আছি, যে পেশায় আছি সেখান থেকে দেশকে ভালোবেসে কাজ করে গেলে আমরা এ দেশকে বিশ্বে উন্নত দেশ হিসেবে গড়ে তুলতে পারবো। আমি ১০ মাস আগে এই নারায়ণগঞ্জে এসেছি। আমি বিগত দশ মাস আপনাদের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করার চেষ্টা করেছি। আমি যেদিন যোগদান করলাম সেদিন দেখলাম প্রতি বর্গ কিলোমিটারে ৪৫ থেকে ৫০ জন লোক স্বাস্থ্যবিধি না মেনেই ঘুরে বেড়াচ্ছে। আপনাদের সকলের সহযোগিতাই বিগত দশ মাসে আমরা প্রায় ১৪ হাজার করোরা মুক্ত করতে পেরেছি। এভাবে কাজ করলে আগামী দশ মাস পর এখানে কোন সন্ত্রাসী বা অপরাধী খুঁজে পাওয়া যাবে না। আমার যোগদানের পর লক্ষ্য করে দেখলাম ২৮শ’ মামলা মূলতবি রয়েছে যার বিরুদ্ধে কোনপ্রকার চার্জশিট দেওয়া হয়নি। আপনাদের সহযোগিতায় আমরা বিগত মাসে ৪২শ’ মামলা নিষ্পত্তি করতে সক্ষম হয়েছি। যার মাধ্যমে আমরা সারাদেশে একটা রেকর্ড করেছি।

সূত্রঃ প্রেস নারায়ণগঞ্জ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin