তক্কার মাঠে বায়তুল আমান কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের কমিটি ঘোষনা নিয়ে উত্তজনা

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

সদর উপজেলার ফতুল্লা থানাধীন তক্কার মাঠ সংলগ্ন বায়তুল আমান কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে অবৈধ ভাবে কমিটির ঘোষনাকে কেন্দ্র করে মুসল্লিসহ এলাকাবাসীর মাঝে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এমপি শামীম ওসমান সমর্থিত আওয়ামী লীগের দলীয় নেতাদের নিয়ে এই অবৈধ কমিটি ঘোষনা করায় মুসল্লি ও এলাকাবাসীর মাঝে রয়েছে চাপা ক্ষোভ। এ ঘটনায় যে কোন সময় সংর্ঘষ হওয়ার আশংকাও করা হচ্ছে। 

জানাগেছে, এই মসজিদের কমিটি গঠনের লক্ষে গত ৬ সেপ্টেম্বর কমিটির সভায় রেজুলেশন করে ৩ সদস্য বিশিষ্ট একটি আহবায়ক কমিটি করা হয়েছে। আহবায়ক হাজী সামছুল হক, সদস্য সচিব আলহাজ্ব ইরিয়াছ মাতবর ও সদস্য আবুল বাশারকে করা হয়। মসজিদ কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সানোয়ার হোসেন জুয়েল ও সাধারণ সম্পাদক বিএম কামরুজ্জামান লিখিত ভাবে এই আহবায়ক কমিটিকে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট সুন্দর একটি কমিটি উপহার দেয়ার জন্য অনুরোধ করেছে। কিন্তু এই ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও সাধরণ সম্পাদকই শনিবার বাদ আছর মসজিদে বহিরাগত আওয়ামী লীগ নেতাদের নিয়ে মুসল্লিদের উদ্দেশ্যে একটি পরিচালনা কমিটির নাম ঘোষনা করে। এরপর থেকে এলাকায় মুসল্লি ও এলাকাবাসীর মধ্যে ক্ষোভের সুষ্টি হলে বর্তমানে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। 

এ বিষয়ে আহবায়ক কমিটির আহবায়ক হাজী সামছুল হকের সাথে মোবাইলে কথা বল্লে তিনি জানান, মসজিদ পরিচালনা কমিটি গঠনের জন্য যেখানে আহবায়ক কমিটি করা হয়েছে। সেখানে সাবেক কমিটির এ বিষয়ে কোন ক্ষমতাই থাকে না। আমরা চেয়েছিলাম ধর্মপ্রান নামাজী ব্যক্তিদের মাধ্যমে একটি কমিটি করব। প্রয়োজনে এই মসজিদের মুসল্লিদের ভোটের মাধ্যমে নেতৃবৃন্দ নির্বাচিত করবো। এবং মসজিদের উপদেষ্টা মন্ডলীদের নিয়ে নতুন কমিটির সদস্যদের নাম ঘোষনা করবো। কিন্তু ওনারা হঠাৎ করে বহিরাগত লোকজন নিয়ে কমিটি ঘোষনা করেছেন। যা সম্পূর্ন অনিয়ম করেছেন। তাই এই কমিটি অবৈধ কমিটি। তিনি আরো বলেন, যেখানে আল্লাহর ঘরের বিষয় তাই কোন সংঘাত আমরা চাইনা তবে অবৈধ কমিটির মাধ্যে আল্লাহর ঘর পরিচালিত হবে সেটাও আমরা কামনা করি না। এ অবস্থায় আহবায়ক কমিটির করনিয় কি প্রশ্নের জবাবে সামছুল হকে বলেছেন, এই মসজিদের প্রধান উদেষ্টা শ্রমিক লীগ নেতা আলহাজ্ব কাউসার আহম্মেদ পলাশকে অবগত করা হবে। উপদেষ্টা মন্ডলী এ বিষয়ে কি ব্যবস্থ নিয়ে তারাই বলতে পারবেন। 

নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক মুসল্লিরা জানান, শ্রমিক নেতা পলাশ এই মসজিদের প্রধান উপদেষ্টা হওয়ায় তার বিরোধীতা করার জন্য সাংসদ শামীম ওসমান সমর্থিত আওয়মী লীগ নেতাদের নিয়ে সানোয়ার হোসেন জুয়েল ও কামরুজ্জামান এই কমিটি করেছে। বাদ আছর এই কমিটি ঘোষনার সময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহ নিজাম ও বিশেষ অতিথি ছিলেন সাবেক জেলা ছাত্রলীগ নেতা এহসানুল হক নিপু এবং আরো কয়েকজন আওয়ামী লীগ নেতা ছিলেন। 

সূত্রঃসময় নারায়ণগঞ্জ বিডি

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin