গ্রেফতারকৃত আহমেদ রবিনকে ছাত্রলীগের সকল কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি চেয়ে আবেদন করা হয়েছে

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

ওকালতনামা, হাজিরা ও জামিননামা জালিয়াতি করার অভিযোগে নারায়ণগঞ্জ আদালতপাড়া থেকে গ্রেফতারকৃত জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রাইসুল আহমেদ রবিনকে ছাত্রলীগের সকল কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি চেয়ে আবেদন করা হয়েছে।

৫ অক্টোবর সোমবার সন্ধায় নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আজিজুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসমাঈল রাফেল স্বাক্ষরিত এক আবেদনে বলা হয়, নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক রাইসুল আহমেদ রবিনের বিরুদ্ধে সরকারি কাগজপত্র জালিয়াতির অভিযোগ পাওয়া যায়। নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের ভাবমূর্তি রক্ষার্থে অনতিবিলম্বে রাইসুল আহমেদ রবিনকে নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সকল প্রকার সাংগঠনিক কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দেয়া হোক।

৫ অক্টোবর ওকালতনামা, হাজিরা ও জামিননামা জালিয়াতি করার অভিযোগে নারায়ণগঞ্জ আদালতপাড়া থেকে ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রাইসুল আহমেদ রবিনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

ওই সময়ে একজন পালিয়ে যায়। তার নাম মিরাজ আহমেদ শুভ। সে রবিনের মালিকানাধীন ‘প্রমিস কম্পিউটার’ দোকানের কর্মচারী। তারা দুইজনে মিলে নারায়ণগঞ্জ আদালতপাড়া নকল ওকালতনামা, হাজিরা ও জামিননামা তৈরি করে বিক্রি করতো। রবিনের কাছ থেকে জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি ও সেক্রেটারীর ভুয়া সীল সাক্ষরযুক্ত ৫০টি ওকালতনামা, কোর্ট ফি উদ্ধার করা হয়।

নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মাহবুবুর রহমান নিউজ নারায়ণগঞ্জকে জানান, ওকালতনামা, হাজিরা ও জামিননামা জালিয়াতি করার অভিযোগে একজনকে ধরে পুলিশের সোপর্দ করা হয়েছে। ওই সময়ে আরো একজন পালিয়ে গেছে। তারা নারায়ণগঞ্জ আদালতপাড়ায় নিজেদের তৈরিকৃত ওকালতনামা, হাজিরা ও জামিননামা বিক্রি করতো।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি আসলাম হোসেন জানান, আইনজীবী সমিতির প্রশাসনিক কর্মকর্তা সাইদুজ্জামান বাদী হয়ে এ ঘটনায় থানায় মামলা করেছেন।

সূত্রঃ নিউজ নারায়াণগঞ্জ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin