কেমন আছে খেটে খাওয়া মানুষেরা?

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

 চলতি মাসের এক তারিখ থেকে শুরু হওয়া লকডাউনের প্রথম দিনে নগরীর প্রধান সড়কগুলো ছিল ফাঁকা। অতি প্রয়োজনীয় গাড়ি ছাড়া তেমন কোনো যানবাহনই চোখে পড়ছিল না। পাড়া-মহল্লার অলি-গলিতেও খুব একটা কোলাহল দেখা যায়নি।

আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে নগরের চাষাড়া শহীদ মিনারের পাশে চোখে পড়ল একজনকে যিনি মলিন চোখে একা বসে আছে ,ঘড়ির কাটায় দুপুর ২ঃ৩০ মিনিট।…… পেশায় একজন মুচি। চাষাড়া মার্ক টাওয়ারের পাশেই নিয়মিত বসেন। দুপুর গড়িয়ে বিকাল হয়ে আসলেও আজ কোন কাজই করতে পারেন নি। গতকাল সর্বসাকুল্যে ১২০ টাকার কাজ করেছেন সারাদিনে। পরিবারে ৪ জন সদস্য আছে। কঠোর লকডাউনে আয় রোজগার কমে যাচ্ছে প্রতিদিন। গতবার কেউ কেউ খাদ্য সহায়তা করলেও এবার কেউ নেই। আজানা এক আতংককে বুকে চেপে দোকান নিয়ে বসেন এই মুচি। তার মত সংখ্য দিন মজুরের চোখের চাহনিই বলে দেয় কঠোর লকডাউনে একটুও ভালো নেই তারা।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin