ইউপি চেয়ারম্যানের রুমে নারীকে ৯ মাস ধরে ধর্ষণ

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

ধর্ষণের পর ধারণকৃত ভিডিও ভাইরাল করার ভয় দেখিয়ে ন্যাশনাল সার্ভিসের কর্মীকে একাধিকবার ধর্ষণের মামলায় গাইবান্ধায় এক ইউপি চেয়ারম্যানকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৪ নভেম্বর) রাত ১০ টার দিকে নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

লক্ষিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান বাদলকে মঙ্গলবার (২৪ নভেম্বর) রাত ১০ টার দিকে নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ ও নির্যাতিতা গৃহবধূর অভিযোগ, এবছরের ১৩ মার্চ ন্যাশনাল সার্ভিসের প্রত্যয়ন আনতে গেলে ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান তার কক্ষে ডেকে নিয়ে একই ইউনিয়নের বাসিন্দা ওই গৃহবধূকে ধর্ষণের পর ভিডিওচিত্র ধারণ করে পরিষদের চেয়ারম্যান বাদল।

পরবর্তীতে ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে আরও একাধিকবার বিভিন্ন জায়গায় তাকে ধর্ষণ করে। সর্বশেষ গত ১১ নভেম্বর নির্যাতিতার বাড়িতে গিয়ে তার স্বামীর অনুপস্থিতে ধর্ষণের সময় আশেপাশের লোকজন টের পেলে চেয়ারম্যান বাদল পালিয়ে যায়।

পরবর্তীতে নির্যাতিতা নিজে বাদী হয়ে থানায় মামলা করলে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে।

গাইবান্ধা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তদন্ত মজিবর রহমান বলেন, বুধবার ভিকটিমের ডাক্তারী পরীক্ষা শেষে বাকী প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin