আইভীকে ক্ষমা চাইতে বললেন মাওলানা ফেরদৌসুর

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভীকে ক্ষমা চাওয়ার আহবান জানিয়েছেন মহানগর উলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা ফেরদৌসুর রহমান।

তিনি বলেছেন, বোরকা হচ্ছে নারীর সম্মান, নারীর ভূষণ। কোরআনে স্পষ্ট পর্দার ব্যাপারে নির্দেশনা রয়েছে। তিনি যে বক্তব্য দিয়েছেন এটা বোরকা কিংবা পর্দাকে অবমাননার শামিল। তিনি একজ মুসলিম নারী হয়ে এ ধরণের বক্তব্য এবং গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও মেয়র হয়ে এই বক্তব্য আশা করিনা।

১৫ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বিকেলে বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন। ওই বিবৃতিতে মাওলানা ফেরদৌসুর রহমান বলেন, অনতিবিলম্বে আমরা উলামায়ে কেরাম ও উলামায়ে পরিষদের নারায়ণগঞ্জ মহানগরের পক্ষ থেকে এই বক্তব্য প্রত্যাখানের দাবী জানাচ্ছি। সেই সাথে তাকে তাকে সঠিক ও সুন্দরভাবে বক্তব্য দেয়ার আহবান জানাচ্ছি। তিনি এ ধরনের বক্তব্য দিয়ে নারায়ণগঞ্জবাসী এবং নারীজাতিকে কলঙ্কিত করেছেন। আমরা তার কাছে এ ধরনের বক্তব্য আশা করি না।

তিনি আরও বলেন, আমরা প্রয়োজনে মিটিং করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নিবো। মেয়রের এই বক্তব্যে আমরা দুঃখ পেয়েছি আমাদের হৃদয়ে আঘাত করেছে। একজন নারী হয়ে এই বক্তব্য দিতে পারেন না। তিনি মুসলিম নারীদেরকে অপমানিত করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত ১৪ সেপ্টেম্বর দুপুরে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের নগর ভবন মিলনায়তনে হলি উইলস্ স্কুলের মুক্তিযোদ্ধা ও তাঁদের সন্তানদের বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী বই প্রদানকালে ডা. সেলিনা হায়াত আইভী বক্তব্যের এক পর্যায়ে বলেন, ‘এক সময়ে পুরাতন ঐতিহ্য ভুলে বিপদগামী নারায়ণগঞ্জকে সঠিক জায়গায় আনার জন্য একজন নারী নেতৃত্ব দেয় তখনই আমার বিরুদ্ধে পোস্টার সাটানো, আইল্যান্ডের উপর ফাঁসি দেওয়া হয়। কিন্তু আমি পিছপা হয়নি। আমি সেই তথাকথিত বোরকা পড়া নারী না যে লজ্জায় মাথানত করে চলে যাবো। আমি এ শহরে উদ্ভাস্ত না। আমি এ শহরে ভেসে আসি নাই। যখন আমি কাজ শুরু করেছি তখন ভেবে চিন্তেই শুরু করেছি। আমিও আরো ১০জন পুরুষের মতই তাল মিলিয়ে কাজ করে যেতে চাই।’

সূত্রঃ নিউজ নারায়ণগনঞ্জ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin