অব‌শে‌ষে স্বপন‌কে ‘রাষ্ট্রবিরোধী ষড়যন্ত্রে’র মামলায় গ্রেফতার দেখা‌নো হ‌লো

শেয়ার করুণ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

অব‌শে‌ষে রাষ্ট্রবিরোধী ষড়যন্ত্রের অভিযোগে জেলা যুবদলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও সোনারগাঁ থানা যুবদলের আহ্বায়ক শহিদুর রহমান স্বপনকে গ্রেফতার ‌দে‌খি‌য়ে‌ছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার রাত আটটায় রূপগঞ্জ উপজেলার গোলাকান্দাইল এলাকায় বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান দিপু ভূঁইয়ার বাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়।

স্বপনের বাড়ি জেলার সোনারগাঁ উপজেলায়।এর আগে বিকেলে মোস্তাফিজুর রহমান ভূঁইয়া দীপুর বাড়িতে তারেক রহমানের সাথে ভার্চুয়াল বৈঠকের আয়োজন করা হয়। সেই বৈঠকে যুবদল নেতা শহিদুর রহমান স্বপন অংশগ্রহণ করেছিলেন।

গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহমুদুল ইসলাম সময় নিউজকে বলেন, যুবদল নেতা শহিদুর রহমান স্বপন ও তার সঙ্গীরা গোলাকান্দাইলের একটি বাড়িতে বসে ভিডিও কনফারন্সের মাধ্যমে বিএনপি নেতা তারেক রহমানের সঙ্গে রাষ্ট্রবিরোধী ষড়যন্ত্র করছিল। গোপন তথ্যের ভিত্তিতে সে বাড়িতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে সহিদুরকে আটক করে। এসময় ওই বাড়ি থেকে একটি করে ল্যাপটপ ও প্রজেক্টর জব্দ করা হয়েছে।

গ্রেফতারের পর শহিদুর রহমান স্বপনের বিরুদ্ধে রূপগঞ্জ থানায় সন্ত্রাস বিরোধী আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে বলেও জানান ওসি মাহমুদুল ইসলাম।তবে পুলিশের অভিযোগ অস্বীকার করে বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান দীপু ভুইয়া বলেন, আমার গোলাকান্দাইলের বাড়িতে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কেন্দ্রীয় যুবদলের সঙ্গে জেলা যুবদলের মিটিং চলছিল। সেখানে ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের যুক্ত হওয়ার কথা ছিল। আমি অসুস্থ থাকায় সেখানে যেতে পারিনি। শুনেছি সেখান থেকেই সহিদুরকে আটক করেছে পুলিশ।

ঘটনার নিন্দা জানিয়ে জেলা যুবদলের সভাপতি শহিদুল ইসলাম টিটু বলেন, সাংগঠনিক বৈঠক করা একটি রাজনৈতিক সংগঠনের সাংবিধানিক অধিকার৷ এটাকে রাষ্ট্রবিরোধী ষড়যন্ত্র করে গ্রেফতারের ঘটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই৷তিনি আরো বলেন, যুবদলের ৪২ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে জেলা যুবদলের সভা চলছিল। সভা চলাকালীন সময় পুলিশ সেখানে অভিযান চালায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে অন্যান্য নেতা-কর্মীরা সেখান থেকে চলে গেলেও পুলিশ স্বপনকে আটক করে।

এর আ‌গে এ ব্যাপারে জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার (ডিএসবি) অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শফিউল ইসলাম বলেছি‌লেন, যুবদল নেতা শহিদুর রহমান স্বপন রূপগঞ্জ থানা পুলিশের হেফাজতে রয়েছে। তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।এ বিষ‌য়ে সহকারি পুলিশ সুপার ‘গ’ সার্কেল মাহিন ফরাজি লাইভ নারায়ণগঞ্জকে জা‌নি‌য়ে ছি‌লেন, বিএনপি নেতা স্বপনকে পুলিশ হেফাজতে রাখা হ‌য়ে‌ছে। আমরা যাচাই-বাছাই শেষে ব্যবস্থা নিবো।

সূত্রঃ লাইভ নারায়ণগঞ্জ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin